রাজবাড়ীতে যে সব কারণে প্রতিদিন বাড়ছে করোনা রোগি –

রাজবাড়ী জেলায় আশংকাজনকভাবে বেড়েই চলেছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। জনসাধারণের মধ্যে বর্তমানে করোনা নিয়ে সচেতনতার অভাব, মাস্ক ছাড়াই কর্মক্ষেত্রসহ পাবলিক প্লেসে অবাধ চলাচল, করোনার উপসর্গ থাকা রোগীদের স্যাম্পল দেয়ার পর যত্রতত্র ঘোরাঘুরিসহ আরও অনেক কারণে রাজবাড়ী জেলার করোনা শনাক্তের হার প্রায়শই দেশের অন্যান্য জেলার তুলনায় অনেক বেশি পাওয়া যাচ্ছে। বৈশ্বিক এই মহামারী মোকাবেলায় রাজবাড়ী জেলার স্বাস্থ্যবিভাগ এবং প্রশাসন সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। এই প্রচেষ্টা সফল করতে এখন প্রয়োজন জনগণের সহযোগিতা।


স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। সকল প্রকার গণপরিবহনে, ধর্মীয় উপাসনালয়ে, বিপনী বিতানে, হোটেল রেস্টুরেন্টে, নিজ নিজ কর্মক্ষেত্রে, সর্বোপরি বাড়ি থেকে বের হওয়ার সময় বাধ্যতামূলকভাবে মাস্ক ব্যবহার করুন।


আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে আয়োজিত কোরবানির পশুর হাটে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন, জনসমাগম এড়িয়ে চলুন। ঈদ উপলক্ষে জেলার বাইরে থেকে আগত ব্যক্তিদের বাড়িতে কোয়ারেন্টাইন এর ব্যবস্থা করুন।


করোনার যেকোন উপসর্গ দেখা দিলে দেরি না করে নিকটস্থ হাসপাতালে জঞ-চঈজ ভড়ৎ পড়ারফ -১৯ টেস্টের জন্য স্যাম্পল প্রদান করুন।ফলাফল পাওয়ার আগ পর্যন্ত বাধ্যতামূলকভাবে ঘরে থাকুন।যেকোনো সমস্যায় প্রয়োজনে টেলিমেডিসিনের মাধ্যমে ডাক্তারের পরামর্শ নিন।যোগাযোগ করুন আমাদের করোনা হটলাইন : ০১৭৮৭২৭৩৮০০ অথবা ০১৭২৯৮৬৬৫৯৩ নম্বরে।
রাজবাড়ী থেকে সংগৃহীত স্যাম্পলগুলো পরীক্ষা করছে স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান রপপফৎ,ন..দক্ষ মেডিকেল টেকনোলজিস্ট দ্বারা সঠিক নিয়মে স্যাম্পল সংগ্রহের মাধ্যমে নির্ভরযোগ্য রিপোর্ট প্রদান করা হচ্ছে প্রতিনিয়ত।তাই স্বাস্থ্যবিভাগ প্রদত্ত রিপোর্টের উপর আস্থা রাখুন।


কোভিড-১৯ টেস্ট পজিটিভ এলে আতঙ্কিত না হয়ে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী চিকিৎসা নিন। উপসর্গবিহীন/সামান্য উপসর্গযুক্ত রোগীরা বাড়িতে সম্পূর্ণ হোম আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা নেবেন। উপসর্গের তীব্রতা বেড়ে গেলে দ্রুত নিকটস্থ কোভিড ডেডিকেটেড হাসপাতালে যোগাযোগ করুন।
প্রশাসন, স্বাস্থ্যবিভাগ, পুলিশের সমন্বয়ে গঠিত টিমের মাধ্যমে কোভিড পজিটিভ রোগীদের বাড়ি লকডাউন করা হচ্ছে। তাদের কাজে সহায়তা করুন।লকডাউনের নিয়ম মেনে চলুন। প্রতিবেশী আক্রান্ত হলে আতঙ্কিত না হয়ে নিরাপদ দূরত্বে থেকে তার প্রতি সহানুভূতিশীল হোন।
সর্বোপরি বৈশ্বিক এই মহামারী মোকাবেলায় সচেতন হতে হবে সমাজের সর্বস্তরের জনগণকে। জেলার করোনা পরিস্থিতির সার্বিক পরিস্থিতির উন্নয়নে সকলের সর্বোচ্চ সহযোগিতা কামনায়…..

ডাঃ মোঃ নূরুল ইসলাম
সিভিল সার্জন, রাজবাড়ী।

(Visited 191 times, 1 visits today)