ঢাকাMonday , 5 September 2022

মামা ও ভাইদের বিদেশ পাঠানোর কথা বলে ডিভোর্সী নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ

Link Copied!

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

মামা, আপন ভাই ও চাচাতো ভাইকে পর্তুগাল পাঠানোর কথা বলে ২৬ বছর বয়সী একজন ডিভোর্সী নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় ওই নারী বাদী হয়ে গত রবিবার সকালে রাজবাড়ী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।


মামলায় হবিগঞ্জ পৌরসভার নাতিরাবাদ গ্রামের মৃত হাজী ফজলু মিয়া ছেলে মোঃ রুহুল আমিন (৪১) কে আসামি করা হয়েছে। রাজবাড়ী থানা পুলিশের সদস্যরা স্থানীয়দের সহযোগিতায় রুহুল আমিনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠিয়েছে।


ওই নারী অভিযোগ, পূর্ব পরিচয়ের সূত্র ধরে রুহুল আমিনের সাথে তার ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের সৃষ্টি হয়। ওই সম্পর্কের রুহুল আমিন মামা, আপন ভাই ও চাচাতো ভাইকে পর্তুগাল পাঠানোর কথা বলে এবং তাদের সাথে জনপ্রতি ৮ লাখ টাকা হিসেবে চুক্তিও হয়। ওই টাকা নিতে চলতি বছরের ২৫ ফেব্রুয়ারী রুহুল আমিন তাদের রাজবাড়ীর বাড়ীতে আসে এবং জনপ্রতি ৫ লাখ টাকা করে গ্রহণ করে। এর পর বাকী ৯ লাখ টাকা নিতে এসে তাকে কুপ্রস্তাব দেয় এবং চলতি বছরের ১৭ জুন রাজবাড়ীর একটি বাড়ীতে তাকে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। তিনি চক্ষু লজ্জার কারণে এবং মামা, আপন ভাই ও চাচাতো ভাইকে পর্তুগাল পাঠানোর লক্ষে বিষয়টি মেনে নেন। তার পর থেকে রুহুল আমিন তাকে রাজধানী ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় নিয়ে ধর্ষণ করে। সর্বশেষ গত শনিবার বিকালে রুহুল আমিন তাদের বাড়ীতে আসে এবং কেউ না থাকার সুযোগে ধর্ষণ করে। ওই সময় তিনি চিৎকার করলে স্থানীয়রা এসে হাতেনাতে তাকে আটক করে। পরবর্তীতে তাকে রাজবাড়ী থানা পুলিশের সোপর্দ করে।


রাজবাড়ী থানার ওসি মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। সেই সাথে মামলার একমাত্র আসামি রুহুল আমিনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

(Visited 630 times, 1 visits today)