মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব এম.এ হান্নানের রাজবাড়ী পরিদর্শন

সাজিদ হোসেন :

-904253

রাজবাড়ী সফরে আসা মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব এম.এ হান্নান বলেছেন, বাংলাদেশ বাদে বিশ্বের ২০৪ টি দেশের আর কোনটিতেই আমাদের মতো ‘মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়’ নেই। মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য যা কিছু হয়েছে-তার সবই বর্তমান সরকারের সময়ে হয়েছে। জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে ‘মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবন’ নির্মাণ প্রকল্পটি সরকারের অগ্রাধিকার মূলক একটি প্রকল্প। এই প্রকল্প নিয়ে কাউকে ছিনিমিনি খেলতে দেয়া হবে না। আমরা বদনামের ভাগীদার হতে চাই না।
তিনি আরো বলেন, প্রথমে দুঃস্থ মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য মাসিক তিন শত টাকা করে ভাতার ব্যবস্থা করা হয়। এরপর সেটাকে বাড়িয়ে নয় শত টাকা হয়। সর্বশেষ প্রতিটি মুক্তিযোদ্ধাকে ‘দুঃস্থ ভাতা’র পরিবর্তে ‘রাষ্ট্রীয় সম্মানী ভাতা’র ব্যবস্থা করা হয়। এ জন্য প্রতি অর্থ বছরে রাজস্ব খাত থেকে প্রায় ১২শত কোটি টাকা ব্যয় হচ্ছে। মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনগুলো নির্মাণের জন্য যে এগারো শত কোটি টাকা ব্যয় হচ্ছে সেই টাকাও সরকারের নিজস্ব তহবীলের।
তিনি গত বৃহস্পতিবার রাতে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে ‘রাজবাড়ী জেলার বিভিন্ন উপজেলাধীন উপজেলা কমপ্লেক্স ভবনের নির্মাণ এবং স্থান নির্বাচন বিষয়ে’ জেলা প্রশাসন আয়োজিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে এ কথা বলেন।
জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় প্রকল্প পরিচালক মাহমুদ হাসান ও মোমিন মজিবুল হক সমাজী, রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার তাপতুন নাসরীন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার মোহাম্মদ আলী, গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মশিউর রহমান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেওয়ান মাহবুবুর রহমান, পাংশা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আমিনুল ইসলাম খান, গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ ঘোষ প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

(Visited 62 times, 1 visits today)