নবাবপুরে গৃহবধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে পাষন্ড স্বামী

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের তেকাটি গত ৩ জুলাই রাতে এক গৃহবধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে তার পাষন্ড স্বামী। ওই গৃহবধুর পিতার বাড়ীর লোকজন উদ্ধার করে বালিয়াকান্দি হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

জানাগেছে, উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের বড় হিজলী গ্রামের আবুল সরদারের মেয়ে জোৎস্না বেগমের সাথে ৫বছর পুর্বে একই ইউনিয়নের তেকাটি গ্রামের বিল্লাল হোসেনের পুত্র হাসান আলীর সাথে পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর হতেই ছোট-খাট যে কোন ঘটনায় নির্যাতন চালায়। এরই মধ্যে তাদের ঔরসে লামিয়া (১) নামে এক সন্তানের জন্ম হয়। এনিয়ে ইতিপুর্বে ছাড়াছাড়ির সিদ্ধান্ত হয়। ফুটফুটে মেয়ের দিকে তাকিয়ে বাবার কথার অবাদ্ধো হয়ে স্বামীর বাড়ীতে চলে আসে। তারপরও পাষন্ড তার অত্যাচার একটুও কমায়নি।

গৃহবধু জোৎস্না বেগম ইশারার মাধ্যমে জানান, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তার স্বামী শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালায়। বুকের উপর চড়ে হাটু দিয়ে আঘাৎ করে। এভাবেই নির্যাতন চালায়। সে নিস্তেজ হয়ে গেলে তার পর কি হয়েছে বলতে পারবে না।

গৃহবধুর পিতা আবুল সরদার জানান, জামাই হাসান রাত ১টার দিকে সংবাদ দেয়, আপনার মেয়ে অসুস্থ। সংবাদ পেয়ে সকালে গিয়ে দেখতে পাই তাকে অমানবিক ভাবে নির্যাতন করা হয়েছে। তাকে অসুস্থ অবস্থায় উদ্ধার করে বালিয়াকান্দি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

(Visited 34 times, 1 visits today)