ইসলামপুরে অষ্টম শ্রেনীর স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ

নিজস্ব প্রতিবেদক :

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে এক ভ্যান চালকের অষ্টম শ্রেনীতে পড়–য়া মেয়েকে ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষন ও বিয়ের আশ্বাসে গর্ভপাত ঘটনানোয় এলাকায় তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়েছে। গত শুক্রবার ওই ছাত্রীকে রাজবাড়ী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সে এখন মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে বলে জানাগেছে।
সরেজমিনে দেখা যায়, পরিবারের সদস্যরা ঘরগুলোতে তালা মেরে ওই ছাত্রীকে রাজবাড়ী হাসপাতালে নিয়ে গেছে। স্থানীয় কয়েকজন মাতুব্বর ও ওই ছাত্রীর ভাবি জানান, ওই ছাত্রী স্থানীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেনীতে পড়ালেখা করে। তার উপর কুনজর পড়ে আড়াবাড়ীয়া গ্রামের লাল চাঁদ শেখের বখাটে ছেলে মতিন শেখ (২৩)। স্কুলে যাতায়াতের পথে মতিন কু-প্রস্তাবসহ উত্যক্ত করত। তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় মতিন সুযোগ খুজতে থাকে। সুযোগ বুঝে মতিন জোড়পুর্বক ধর্ষন করে। এতে গর্ভবতী হয়ে পড়লে ওই ছাত্রীকে তার খালা বাড়ীতে পাঠানো হয়। খালাবাড়ীতে অবস্থান কালে সুচতুর মতিন তাকে বিয়ের আশ্বাসে ফুসলিয়ে গত ১০ সেপ্টেম্বর রাজবাড়ীতে একটি ক্লিনিকে নিয়ে গর্ভপাত ঘটায়।
এ বিষয়ে মেয়ের পিতা বাদী হয়ে ওই দিন বালিয়াকান্দি থানায় জিডি করে। গত ১১ সেপ্টেম্বর ওই ছাত্রীকে একা বাড়ীতে ফেলে রেখে সুচতুর মতিন পালিয়ে যায়। এনিয়ে রাতে একগ্রাম্য শালিসের আয়োজন করলে বিয়ের আশ্বাস প্রদান করে মতিনের পিতা লাল চাঁদ শেখ। ১২ সেপ্টেম্বর সকালে ওই ছাত্রী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সে এখন হাসপাতাল বেডে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে। বিষয়টি ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে একটি মহল উঠেপড়ে লেগেছে।

(Visited 41 times, 1 visits today)