নাদের মুন্সি হত্যার বিচার চাই – রাজবাড়ী-১ আসনের এমপি কাজী কেরামত আলী –

রাজবাড়ী বার্তা :

রাজবাড়ী জেলা কৃষকলীগের সাবেক সভাপতি ও পাংশা উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস-চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মুন্সি নাদের হোসেনের ষষ্ঠ মৃত্যু বার্ষিকী পালন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে আজ শনিবার দুপুরে মুন্সি নাদের হোসেনের পরিবারবর্গের আয়োজনে জেলার পাংশা উপজেলার হাবাসপুর ইউনিয়নের কাঁচারীপাড়া গ্রামের বাড়ীতে এক আলোচনা সভা, দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়।


হাবাসপুর ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি গোলাম রব্বান বিশ্বাসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন, সাবেক শিক্ষাপ্রতিমন্ত্রী ও রাজবাড়ী-১ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজী কেরামত আলী।

কাজী কেরামত আলী বলেনন, মুক্তিযোদ্ধা নাদের মুন্সী ছিলেন এদেশের কৃষিজীবি মানুষের অকৃত্রিম বন্ধু। তিনি কৃষকদের স্বার্থের জন্য জীবন বাজী রেখে কাজ করতেন। তার সততা ও সাহসীকতা অতুলনীয়। তবে তাকে প্রকাশ্য সকাল ৯টার সময় গুলি করে হত্যা করা হবে তা কেউ ভাবেনি। আমি তার হত্যার বিচার চাই।

সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফকির আব্দুল জব্বার, সাবেক এমপি আব্দুল মতিন, কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক নুরে আলম সিদ্দিকী হক, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ সোহেল রানা টিপু, এ্যাডঃ ফরহাদ হোসেন, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি হেদায়েত আলী সোহরাব, অধ্যাপক নজরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর, কালুখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি কাজী সাইফুল ইসলাম, জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন-সম্পাদক এ্যাডঃ রফিকুল ইসলাম, জেলা আওয়ামীলীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এসএম নওয়াব আলী, উপ-প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক আমজাদ হোসেন, জেলা কৃষকলীগের সাধারন সম্পাদক আবু বক্কার খান, সদর উপজেলার যুগ্ন-আহবায়ক রাজু আহম্মেদ, সদস্য সচিব আলাউদ্দিন আলাল প্রমুখ। সঞ্চলনায় ছিলেন, মুন্সি নাদের হোসেনের ছেলে মোস্তফা মাহমুদ হেনা মুন্সি।
বক্তরা, দ্রুত সময়ের মধ্যে মুন্সি নাদের হোসেন হত্যার বিচার এবং জড়িতদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানান।

(Visited 214 times, 1 visits today)