পাংশায় শিক্ষক হত্যার ঘটনায় জজ আলীসহ ৫১ জনের বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেপ্তার ৫ –

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার কশবামাজইল ইউনিয়নের সুবর্ণকোলা গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে
কেন্দ্র করে আসাদুল বারী খান নামে এক স্কুল শিক্ষককে হত্যার ঘটনায় আজ শনিবার সকালে ৫১ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
মামলায় প্রধান আসামি করা হয়েছে জেলার পাংশা উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য এবং কশবামাজইল ইউনিয়ন পরিষদের পরাজিত আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মোঃ জজ আলী বিশ্বাস এবং ২নং আসামি করা হয়েছে, কসবামাজাইল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান পিল্টু জোয়ার্দ্দারকে। মামলার বাদী হয়েছেন, নিহতের ভাতিজা মোঃ নজরুল ইসলাম খান।
পুলিশ ওই মামলার পাঁচ জন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, কশবামাজইল ইউনিয়নের সুবর্ণকোলা গ্রামের আমজাদ বিশ্বাসের আতিয়ার হোসেন বিশ্বাস (৩৫), লুকমান হোসেনের ছেলে রুবেল আলী মন্ডল (৪২), রুস্তম বিশ্বাসের ছেলে সিরাজ বিশ্বাস (৩৮), ফিরোজ খানের ছেলে শাকিল খান (৩২) এবং ঝিনাইদাহ জেলার শৈলকূপা উপজেলার জালসুখা গ্রামের সামাদ আলী শেখের ছেলে রতন আলী শেখ (২৬)।
পাংশা থানার ওসি মোঃ আহসানুল্লাহ জানান, আজ সকালে গ্রেপ্তারকৃতদের রাজবাড়ীর আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে। মামলার অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। আজ ময়না তদন্তে শেষে শিক্ষক আসাদুল বারী খানের মরদেহ তার পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, গত শুক্রবার ভোরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগ নেতা জর্জ আলী বিশ্বাসের গ্রুপের হাতে নিহত হন স্কুল শিক্ষক আসাদুল বারী খান। এ ঘটনায় উভয় পক্ষের অন্তত ২০ আহত হয়। একই সাথে ২০টির অধিক বাড়ী ঘর ভাংচুর করা হয়েছে। গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন থেকেই ওই এলাকায় বিজয়ী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ কামরুজ্জামান খান এবং পরাজিত জজ আলী বিশ্বাসের গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দীর্ঘ দিন ধরেই মাঝে মধ্যে সংঘর্ষ ও ঘরবাড়ী ভাংচুরের ঘটনা ঘটে আসছিলো।

(Visited 2,039 times, 1 visits today)