পাংশায় ছাত্রলীগের কাউন্সিল নিয়ে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

012

রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার পাট্টা ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে গত শনিবার রাতে দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সে সময় ৫টি বাড়ী ভাংচুর করার পাশাপাশি ৮ জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে ২ জনকে পাংশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

জানাগেছে, ছাত্রলীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে গত কয়েক দিন ধরে পাট্টা ইউনিয়নের খামারডাঙ্গী গ্রামের স্কুল শিক্ষক রবিউল ইসলাম এবং সুজা উদ্দিন মোল্লার গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছিল। ওই উত্তেজনার অংশ হিসেবে গত শনিবার রাত ৯ টার দিকে সুজা উদ্দিন মোল্লা গ্রুপের নেতৃত্বে ৩০/৪০ জনের এক দল দূর্বৃত্ত লাঠিশোঠা ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে একই গ্রামের পিয়ার আলী জোয়াদ্দার, রব আলী জোয়াদ্দার, সিরাজুল ইসলাম, লিয়াকত আলি বিশ্বাস ও হালিম বিশ্বাসের বাড়ীতে হামলা চালায় ও ভাংচুর করে। এ সময় হালিম বিশ্বাস ও তার ছেলে রাসেল বিশ্বাস, মর্জিনা খাতুনসহ ৮ জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে হালিম বিশ্বাস ও তার ছেলে রাসেল বিশ্বাসকে পাংশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।
ভাংচুরের শিকার সিরাজুল ইসলাম জানান, ছাত্রলীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে অতর্কিত ভাবে সুজা উদ্দিন মোল্লার গ্রুপের সদস্যরা তাদের বাড়ী ঘরের উপর হামলে পরে। এ সময় উভয় গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।
গতকাল রবিবার সন্ধ্যায় পাংশা থানার ওসি আবু সামা মোঃ ইকবাল হায়াত জানান, খবর পেয়ে রাতেই থানা পুলিশের সদস্যরা ঘটনাস্থালে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে গতকাল সন্ধ্যা পর্যন্ত ওই ঘটনায় থানায় কোন অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।

(Visited 27 times, 1 visits today)