গত ১৮ দিনে রাজবাড়ীতে প্রবাসী এসেছে ১,৭২৫, হোম কোয়ারেন্টাইনে আছে মাত্র ৬০ জন-

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

করোনা ভাইরাস আতংকে রয়েছে রাজবাড়ীর বাসিন্দারা। তবে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্যেই প্রশাসনিক কার্যক্রমের গতিশীলতা আনার চেষ্টা চলছে। জেলা পুলিশ নিয়েছে কঠোর পদক্ষেপ। তারা ঘোষনা দিয়েছে, বিদেশ থেকে আগতরা যদি স্বেচ্ছায় হোম কোয়ারেন্টাইনে না যায়, তাদের ধরে সরকারী ব্যবস্থাপনায় আটকে রাখা হবে।
জানাগেছে, গত ২৪ ঘন্টায় রাজবাড়ীতে নতুন ৩১ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। এ নিয়ে রাজবাড়ীতে হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে মোট ৬০ জন প্রবাসী। তবে উদ্বেগের বিষয় হলো, গত ১৮ দিনে রাজবাড়ীতে বিদেশ থেকে এসেছে ১ হাজার ৭ শত ২৫ জন। তারা কোথায় কিভাবে আছেন, তার কোন তথ্যই নেই কারও কাছে। এরা ভারত, ইতালি, চীন, অস্ট্রেলিয়া, মালদ্বীপ, কাতার, সাউথ কোরিয়াসহ বিভিন্ন দেশ থেকে আসেছে। আগতদের মধ্যে ভারত থেকেই এসেছে সহ¯্রাধিক।
রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার মোঃ মিজানুর রহমান পিপিএম বলেন, ১ মার্চ হতে ১৭ মার্চ পর্যন্ত দেশের সকল বিমান বন্দর এবং স্থল বন্দর দিয়ে রাজবাড়ী জেলার মোট ১ হাজার ৭ শত ২৫ জন ব্যক্তি বিদেশ থেকে বাংলাদেশে আগমন করেছেন। তাদের তালিকা থানা, ইউনিয়ন,ওয়ার্ড পর্যায়ে প্রেরন করা হয়েছে। রাজবাড়ী জেলায় করোনা প্রতিরোধে প্রতিটি উপজেলা, পৌরসভা, ইউনিয়ন, ওয়ার্ডে গঠিত করোনা প্রতিরোধ কমিটি প্রতিটি বিদেশ ফেরত ব্যক্তিকে কোয়ারেন্টাইনে রাখার জন্য কাজ করবেন। কেউ নিজ থেকে নিজের বাড়ীতে কোয়ারেন্টাইনে না থাকলে কিংবা বাহিরে ঘুরাফেরা করলে তাকে “সঙ্গ নিরোধ আইনে শাস্তি স্বরূপ জেল, জরিমানা ভোগ করতে হবে। ওয়ার্ড কমিটির নিকট থেকে তালিকা সংগ্রহ করে আপনার ওয়ার্ডে বিদেশ ফেরত ব্যক্তিগনকে কোয়ারেন্টাইনে রাখতে সাহায্য করুন এবং করোনার বিস্তার প্রতিরোধ করুন। ইতোমধ্যেই প্রবাসীদের জন্য সদর উপজেলার আলাদীপুরে অবস্থিত যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর এবং টিটিসি’তে প্রায় ১ শতটি শয্যা প্রস্তুত করা হয়েছে। যারা নির্দেশ মানছেন না, তাদের ব্যাপারে কঠোর আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। তাদের ধরে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর এবং টিটিসি’র হোম কোয়ারেন্টাইন রাখা হবে।
রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ নুরুল ইসলাম জানান, হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা সবাই সুস্থ্য আছেন। ইতোমধ্যে ৩ জনকে মুক্তিও দেয়া হয়েছে। সেই সাথে সবাইকে সচেতন থাকার পরামর্শ দেয়া হচ্ছে। তবে এখন পর্যন্ত আইসোলেশনে কোন রোগী ভর্তি হয়নি। সদর হাসপাহালসহ প্রতিটি উপজেলা হাসপাতাল গুলোতে ৫ টি করে আইসোলেশন বেড প্রস্তুত রাখা হয়েছে করোনা ভাইরাস রোগীদের জন্য।

ফেসবুক থেকে এ ভিডিওটি দেখা না গেলে TV Rajbari লিখে ইউটিউবে সার্জ দিলেও দেখা যাবে।

(Visited 2,950 times, 1 visits today)