দৌলতদিয়ায় নৌকা প্রার্থীর পক্ষে প্রচারনা করতে গিয়ে জেলা কৃষকলীগের সভাপতিসহ ৪জনকে পিটিয়ে জখম –

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম : 

নৌকার প্রার্থীর পক্ষে প্রচারনায় অংশ নেয়ায় রাজবাড়ী জেলা কৃষকলীগের সভাপতি, সম্পাদকসহ ৪ জনকে পিটিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। আহতদের রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
রাজবাড়ী জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু বক্কার খান বলেন, আগামী ২৫ জুলাই রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন। ওই নির্বাচনে নৌকা প্রতিক নিয়ে আওয়ামীলীগের প্রার্থী হিসেবে চেয়ারম্যান পদে প্রতিবদ্বন্দীতা করছেন ওই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও জেলার গোয়ালন্দ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম মন্ডল। যে কারণে নৌকা প্রার্থীর পক্ষে প্রচারনায় অংশ নিতে আজ মঙ্গলবার সকালে জেলা কৃষকলীগের নেতৃবৃন্দ স্থানীয় নেতা-কর্মীদের নিয়ে দৌলতদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সামনে গিয়ে পৌছান। সেখানে তারা প্রার্থী নুরু ইসলাম মন্ডলের সাথে সাক্ষাৎ করেন এবং প্রার্থীর কর্মীদের সাথে প্রচারনায় নামতে প্রস্তুত হন। ওই সময় আনারস প্রতিকের আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী ও উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি আব্দুর রহমান মন্ডলের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী তাদের উপর হামলা চালায়। হামলায় তিনিসহ জেলা কৃষকলীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, জেলা কৃষক লীগের সদস্য আব্দুল কাদের মুন্সি, গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষকলীগের সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান আহত হয়। আহতদের রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
গোয়ালন্দ উপজেলা কৃষকলীগের সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান বলেন, ঘটনাস্থলে গোয়ালন্দ ঘাট থানা পুলিশ না থাকলে পরিস্থিত ভয়াবহ আকার ধারণ করতো।
গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি এজাজ সফি জানান, নির্বাচনী প্রচারনা চালানোর সময় আওয়ামীলীগ ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। তারা ঘটনাস্থলে অবস্থান করে পরিস্থিতি শান্ত করতে সমর্থ হন। তবে গতকাল বিকাল পর্যন্ত ওই ঘটনায় থানায় কোন অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।
তবে আনারস প্রতিকের চেয়ারম্যান প্রার্থী ও উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি আব্দুর রহমান মন্ডল জানান, তিনি এই হামলা ও মারপিটের ঘটনার কিছু জানেন না।

(Visited 2,811 times, 1 visits today)