গৃহবধুকে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ –

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম : 

এক গৃহবধুকে অপহরণের পর আটকে রেখে যৌন নিড়িপন ও ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই অভিযোগের প্রেক্ষিতে আজ শনিবার সকালে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি থানা পুলিশের সদস্যরা অপহৃত ওই গৃহবধুকে উদ্ধার করেছে। সেই সাথে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে তার ডাক্তারী পরীক্ষা করানো হয়েছে।
বালিয়াকান্দি থানার এস,আই বিল্লাল হোসেন জানান, বেশ কিছু দিন ধরে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের হরিকোল গ্রামের তোফাজ্জেল শেখের ছেলে শরিফুল শেখ, রশিদ শেখের ছেলে মিরাজ শেখ, লালু শেখের ছেলে আমোদ আলী শেখ ও জয়ধর শেখের ছেলে সাত্তার শেখ ওই গৃহবধুকে উত্ত্যক্ত করে আসছিলো। যে কারণে ওই গৃহবধু বিষয়টি তার স্বামীকে অবহিত করেন। তার স্বামী তা ওই সব ব্যক্তিদের পরিবারের সদস্যদের জানান। এতে ওই সব ব্যক্তিরা ক্ষিপ্ত হয়। তারা গৃহবধুর ক্ষতি করতে উঠে পরে লাগে। যার অংশ হিসেবে গত ৬ জুলাই সকালে বসতবাড়ীর পশ্চিম পাশের রাস্তার উপর থেকে তারা ওই গৃহবধুকে মাহেন্দ্র গাড়ী যোগে অপহরণ করে নিয়ে যায়। ওই সময় গৃহবধু চিৎকার করেন। তবে আশপাশের লোকজন আসার আগেই তারা তাকে নিয়ে চম্পট দেয়। পরে ওই গৃহবধুকে অজ্ঞাত স্থানে আটকে রেখে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে যৌন নিপিড়নসহ ধর্ষণ করে। সেই সাথে গত ৭ জুলাই ০১৮৬৫-৫৭২৩৬৩ নং মোবাইল ফোন থেকে কল করে দুই লক্ষ টাকা মুক্তিপনও তারা দাবী করে। যে কারণে গত ১০ জুলাই ওই গৃহবধু’র স্বামী বাদী হয়ে রাজবাড়ী বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালত বালিয়াকান্দি থানার অফিসার ইনচার্জকে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেন। যা আজ শনিবার সকালে বালিয়াকান্দি থানায় রেকর্ড করা হয়।
বালিয়াকান্দি থানার ওসি আজমল হুদা জানান, ওই অপহৃত গৃহবধুকে উদ্ধার করা হয়। সেই সাথে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে তার ডাক্তারী পরীক্ষাও করানোা হয়েছে। আসামীদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

(Visited 234 times, 1 visits today)