রাজবাড়ীতে স্ত্রী হত্যার অভিযোগ দুই বছর পর সিআইডি’র হাতে স্বামীসহ ৫ ভাই গ্রেপ্তার-

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

 

দুই বছর আগে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে নুরুন্নাহার বেগম (২৩) নামে এক গৃহবধুর লাশ ফেলে পালিয়ে গিয়েছিলো তার স্বামী শেখ মানিক উদ্দিন (২৫)। ওই ঘটনার পর আজ শুক্রবার সকালে রাজবাড়ীর সিআইডি পুলিশের সদস্যরা যশোর জেলার কেশবপুরি উপজেলার বরণডালী গ্রাম থেকে স্বামী মানিকসহ তার অপর চার ভাই শেখ মোকলেছুর রহমান, শেখ মোস্তাফিজুর রহমান, শেখ মোহসিনুর রহমান এবং শেখ মারুফ উদ্দিনকে গ্রেপ্তার করেছে।
জানাগেছে, ২০১৬ সালের ১১ জানুয়ারী রাজবাড়ী জেলা শহরের ভাজনচালা এলাকা ভাড়া বাসা থেকে গৃহবধু নুরুন্নাহার বেগমকে তার স্বামীসহ স্থানীয়রা নিয়ে সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। এর কিছু সময় পর নুরুন্নাহার মারা যায়। ওই সুযোগে মানিক আতœগোপনে চলে যায়। মানিক সে সময় আরএফএল কোম্পানীর বিক্রিয় প্রতিনিধি হিসেবে রাজবাড়ী জেলায় কর্মরত ছিলো। পরবর্তীতে রাজবাড়ী থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়। তবে গত ২০১৭ সালে ১ এপ্রিল নুরুন্নাহার বেগমের চাচা সোহরাব হোসেন বাদী হয়ে মানিক ও গ্রেপ্তারকৃতরাসহ আট জনকে আসামি করে রাজবাড়ীর আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালতের নির্দেশে ওই মামলাটি থানায় রেকর্ডও হয়। তবে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আসামিদের পক্ষে চুড়ান্ত প্রতিবেদন তৈরীর পর তা আদালতে দাখিল করেন। তবে তা মেনে নেননি বাদী । তিনি মামলাটি পুনঃতদন্তের জন্য আদালতে কাছে আবেদন করেন। আদালত মামলাটি রাজবাড়ীর সিআইডি ওসিকে তদন্ত পূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেন দেন।
রাজবাড়ীর সিআইডি ইন্সেপেক্টর শেখ মোঃ আক্তার উজ্জামান জানান, আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী গতকাল ভোরে মানিক ও তার চার ভাইকে যশোর জেলার কেশবপুরি উপজেলার বরণডালী গ্রামের বাড়ী থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

(Visited 162 times, 1 visits today)