বহরপুর বাজারে চোরাই মোটর সাইকেলসহ চোর ধরে পুলিশে সোপর্দ –

রাজবাড়ী বার্তা ডট কম :

15

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর বাজারে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মোটর সাইকেল চোর আটক করেছে বাজারের ব্যবসায়ীরা। বাজার পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে চুরি যাওয়া মোটর সাইকেল উদ্ধারের পর চোরসহ মোটর সাইকেলটি বালিয়াকান্দি থানা পুলিশের নিকট সোপর্দ করেছে ।
জানাগেছে, বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর ইউনিয়নের তেঁতুলিয়া গ্রামের মোঃ আব্দুল কুদ্দুস বিশ্বাসের ছেলে মোঃ মনির বিশ্বাস (২০) বেশ কিছু দিন আগে চাকুরি নেয় ফরিদপুর জেলার মধুখালী উপজেলার কামারখালী প্রাইড জুট মিলে। সেখানে তার সাথে কাজ করতে করতে সখ্যতা হয় কামারখালী মোল্লাপাড়া এলাকার মোঃ নায়েব আলীর ছেলে মোঃ জিহাদ মোল্লার সাথে। সেই সুবাদে গত ৬ অক্টোবর বিকালে জিহাদ ও মনির কামারখালী বাজারের ব্যবসায়ী মনিরের হিরো হুন্ডা নাম্বার ঢাকা মেট্রো হ-২৯-৮২১১ টি চেয়ে নিয়ে বেড়াতে আসে। মনির বিশ্বাস বেড়াতে বেড়াতে জিহাদকে নিয়ে আসে তার নিজ এলাকায়। সেখান থেকে বহরপুর রেলওয়ে ষ্টেশনে। এরই মধ্যে মনির মোবাইল ফোনে যোগাযোগ সেরে নেয় তার দোসরদের সঙ্গে। জিহাদকে ষ্টেশনে রেখে মনির মোটর সাইকেলটি নিয়ে বাজারের দিকে আসে এবং তুলে দেয় তার পূর্বথেকে সাজানো লোকদের কাছে। ফিরে গিয়ে জিহাদকে বলে মোটর সাইকেলটি পুলিশে নিয়ে গেছে। এরপর মনির ও জিহাদ একটি ভ্যানে চরে বাজারের দিকে ্আসতে থাকে। জিহাদ ভ্যানে চরেই কাঁন্নায় ভেঙ্গে পড়ে। ভ্যানচালক তার গতিবিধি লক্ষ করতে পেরে বাজারের মোহন মার্কেট এলাকার একটি দোকানে এসে ভ্যানটি দাঁড় করে এবং ঘটনার বিস্তারিত জানায়। মনিরের নিকট জিজ্ঞাসা করলে সে বিভিন্ন টালবাহানা করতে থাকে। সেই সময় বাজারের ব্যবসায়ীরা তাকে আটক করে।
বাজার পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মোঃ তৈয়বুর রহমান, এলাকার মেম্বার মোঃ শুকুর আলী খান ও মোঃ ওহিদুল ইসলামসহ বাজারের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এসে জিজ্ঞাসা করলে মনির গাড়িটি তার বাড়ীতে আছে বলে জানায়। সেখানে খোজ করে মোটর সাইকেলটি না পেয়ে পূনরায় তাকে জিজ্ঞাসা করলে সে বলে দিলালপুর বাগানের মধ্যে মোটর সাইকেলটি রয়েছে। এরপর বেশ কয়েকজন ব্যাক্তি গিয়ে মোটর সাইকেলটি পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে বাজারে নিয়ে আসে। গাড়ির মালিক মনির হোসেন এটা তার গাড়ী বলে সনাক্ত করে। এরমধ্যে বালিয়াকান্দি থানার পুলিশ সেখানে উপস্থিত হলে মোটর সাইকেলসহ চোর মুনিরকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।
এর আগে চোর মনিরের নিকট জানতে চাইলে সে জানায়, একটি ব্লু রংয়ের পালচার মোটর সাইকেল নিয়ে পুলিশ পরিচয়ে আমার নিকট থেকে মোটর সাইকেলটি নিয়ে যায়। এলাকার লোকজন ও বাজারের ব্যবসায়ীদের প্রশ্ন এই ব্লু রংয়ের পালচারটি আসলে কার। এই মনিরকে নিয়েই তেঁতুলিয়া এলাকায় গড়ে উঠেছে একটি বড় ধরনের চক্র। মুনিরের জিজ্ঞাসা করলেই বেরিয়ে যাবে থলের বিড়াল।

(Visited 262 times, 1 visits today)